আজ  মঙ্গলবার, ২২ সেপ্টেম্বর, ২০২০

আদালতে মামলা করায় ক্ষিপ্ত হয়ে চাঁদপুরে বাপ ও ছেলের উপর সন্ত্রাসী হামলা, ঘরবাড়ি ভাঙচুর

 

 

আদালতে মামলা করায় ক্ষিপ্ত হয়ে বাপ ও ছেলের উপর সন্ত্রাসী হামলা চালিয়ে গুরুতর আহত করার ঘটনা ঘটেছে।
চাঁদপুর সদর উপজেলা ১২ নং চান্দ্রা ইউনিয়ন এর ২ নং ওয়ার্ড সুইচগেট সংলগ্ন গাজী বাড়ি বিলে এই হামলার ঘটনা ঘটে।
আহত ইব্রাহিম গাজীর ছেলে আকরাম হোসেন গাজী চাঁদপুর সরকারি জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে।
চান্দ্রা ইউনিয়নের বাখরপুর গ্রামে ইব্রাহিম গাজীর ১৫ শতক সম্পত্তি ভুলবশত বিএস খতিয়ানে ভাইদের নামে উঠে যায়।
এই ঘটনায় আদালতে বিএস সংশোধনী মামলা দায়ের করা হয়।
আদালতে মামলা করায় ক্ষিপ্ত হয়ে ভাই আহসান উল্লাহ গাজীর নেতৃত্বে ভাতিজা ফয়সাল গাজী, ইসমাইল গাজী, ইদ্রিস গাজ, আলম গাজী, খোরশেদ গাজী, খলিল গাজী ও সিদ্দিক গাজী দেশি অস্ত্র নিয়ে ইব্রাহিম উপর হামলা চালায়।
এসময় বাবাকে বাঁচাতে গেলে ছেলে আকরাম হোসেন গাজীর উপর অতর্কিতভাবে হামলা চালিয়ে গুরুতর আহত করে।
আহত ইব্রাহিম গাজি জানায়, মামলা করার জের ধরে ভাই ভাতিজারা এভাবে সন্ত্রাসী হামলা চালিয়ে আহত করেছে। তাদের উদ্দেশ্য ছিল বাপ ও ছেলে দুজনকে কুপিয়ে হত্যা করা। গত শনিবার বাড়ির পাশে নিজের জমিতে কীটনাশক ঔষধ দিতে গেলে তারা পূর্বপরিকল্পিতভাবে এই সন্ত্রাসী হামলার ঘটনা ঘটিয়েছে। বাড়ির আশেপাশের লোকজন দৌড়ে এসে বাপ ছেলে দুজনকে উদ্ধার করে চাঁদপুর সরকারি জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করায়। এছাড়াও তারা বাড়িতে হামলা চালিয়ে ঘরবাড়ি ভাঙচুর করে লুটপাট চালায়।তারা হামলা চালানোর পরেও ক্ষান্ত না হয়ে উল্টো মডেল থানায় মিথ্যা অভিযোগ দিয়ে হয়রানি করার চেষ্টা করছে।
এই হামলার ঘটনায় হামলাকারীদের বিরুদ্ধে মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে।