আজ  বুধবার, ১৭ জানুয়ারি, ২০১৮

ক্রিকেটে হারের বদলা হকিতে!

অসহায় আত্মসমর্পণ। গল টেস্টে স্বাগতিক শ্রীলংকার কাছে বাংলাদেশ আর বিশ্ব হকি লীগের দ্বিতীয় রাউন্ডে স্বাগিতক বাংলাদেশের কাছে হারল লংকানরা। ক্রিকেটে হারের প্রতিশোধ হকিতে। শনিবার মওলানা ভাসানী হকি স্টেডিয়ামে স্থান নির্ধারণী ম্যাচে লংকানদের ৯-০ গোলে উড়িয়ে দিয়েছে বাংলাদেশ। আজ পঞ্চম স্থানের জন্য ঘানার বিপক্ষে লড়াইয়ে নামবেন জিমিরা। গ্রুপপর্বে ওমান এবং কোয়ার্টার ফাইনালে মিসরের কাছে হারের পর জয় পেল বাংলাদেশ। ম্যাচের শুরু থেকেই আক্রমণে ছিলেন অলিভার কার্টজের শিষ্যরা। পুরো ম্যাচই তারা খেলেছেন

whl-bangladrsh__vs__srilanka_41868_1489272597এম. পারভেজ পাটোয়ারী ঃ আক্রমণাত্মক ধারায়। সারা মাঠজুড়ে খেলেছেন সারোয়ার হোসেন। দুর্দান্ত খেলেছেন মঈনুল ইসলাম কৌশিকও। অধিনায়ক জিমি মাঝেমধ্যে প্রচণ্ড গতিতে প্রতিপক্ষের বিপদ সীমানায় ঢুকে পড়ায় বিপর্যস্ত হয়ে পড়ে শ্রীলংকা। ফলে ম্যাচ শুরুর মাত্র ৫০ সেকেন্ডে পেনাল্টি কর্নার (পিসি) থেকে গোল আদায় করে স্বাগতিকরা। জিমির পুশে সারোয়ারের স্টপের পর চয়নের ড্র্যাগ লংকানদের গোলকিপার তুসিত রত্নাসিরিকে কোনো সুযোগ না দিয়ে বল ঠাঁই নেয় জালে (১-০)। মিনিটদশেক পর জিমির চমৎকার স্টিকওয়ার্কে পরাস্ত হয় শ্রীলংকার রক্ষণভাগ। সেই বলে কোনাকুনি হিটে ফ্লিক করে দ্বিতীয় গোলটি করেন মিলন হোসেন (২-০)। অবিরাম আক্রমণে লংকান গোলমুখ ব্যস্ত রাখে জিমি-বাহিনী। ২৪ মিনিটে চয়ন পিসি থেকে নিজের দ্বিতীয় ও দলের তৃতীয় গোল করলে ম্যাচে বাংলাদেশের আধিপত্য সুস্পষ্ট হয়। জিমি-রানার পুশ স্টপের পর চয়ন এবার নিচু হিটে গোল করেন (৩-০)। শেষ কোয়ার্টারে বাংলাদেশ আরও ছয়টি গোল করে। ৩০ মিনিটে ব্যবধান বাড়ান মিলন হোসেন (৪-০)। ৪৬ মিনিটে জিমি বল ঠেলে দিলে গোল করতে ভুল করেননি কৌশিক (৫-০)। মিনিটতিনেক পর আরশাদ দলের ষষ্ঠ (৬-০), ৫৬ মিনিটে জিমি সপ্তম (৭-০), ৫৮ মিনিটে ফের আরশাদ অষ্টম (৮-০) এবং ম্যাচের অন্তিম সময়ে মিলন হোসেন নিজের তৃতীয় ও দলের হয়ে নবম গোলটি করেন (৯-০)। শ্রীলংকাও সুযোগ পেয়েছিল গোলের। কিন্তু তাদের অসাধারণ দুটি চেষ্টা নস্যাৎ করে দেন স্বাগতিক গোলকিপার জাহিদ হোসেন। বেশ কিছু আক্রমণ রুখে দেন বাংলাদেশের চয়ন, পিন্টু, খোরশেদ ও আশরাফুল।