আজ  সোমবার, ২৩ এপ্রিল, ২০১৮

খালেদা না বুঝে যা খুশি বলে দেন :প্রধানমন্ত্রী

1514997577
অনলাইন ডেস্কঃ : প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, ‘বিএনপি নেত্রী খালেদা জিয়া সব কিছু বোঝেন না। কিন্তু না বুঝে যা খুশি বলে দেন।’ মঙ্গলবার ছাত্রদলের প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীর আলোচনায় পদ্মা সেতু নিয়ে খালেদা জিয়ার দেওয়া বক্তব্যের জবাবে প্রধানমন্ত্রী আরো বলেন, ‘খালেদা জিয়া ব্রিজের কিছু বোঝেন না। যেটুকু বোঝেন সেটুকুই বলেছেন। এটা নিয়ে আমার আর কী বলার আছে?’ গতকাল বুধবার প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ে মন্ত্রিসভার বৈঠকে অনানুষ্ঠানিক আলোচনায় প্রধানমন্ত্রী এসব কথা বলেন। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এ বৈঠকে সভাপতিত্ব করেন।  জানা গেছে, পদ্মা সেতু নিয়ে বিএনপি চেয়ারপারসনের বক্তব্যটি প্রধানমন্ত্রীর নজরে আনেন একজন মন্ত্রী। বলেন, মঙ্গলবার খালেদা জিয়া বলেছেন, ‘জোড়াতালি দিয়ে পদ্মা সেতু বানানো হচ্ছে। এই সেতুতে ঝুঁকি আছে। কেউ যেন এতে না উঠে।’ এ সময় প্রধানমন্ত্রী উল্লিখিত কথা বলেন। এদিকে ছাত্রদলের প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীর কর্মসূচিটি হয় রাজধানীর ইঞ্জিনিয়ার্স ইনস্টিটিউশন মিলনায়তনে। কিন্তু সেখানে সকাল থেকে তালাবদ্ধ করে রাখা হয় মূল ফটক। বিএনপির পক্ষ থেকে এ জন্য রাষ্ট্রপতির নিরাপত্তায় থাকা এসএসএফকে দায়ী করা হয়েছে। তবে প্রধানমন্ত্রী মন্ত্রিসভার বৈঠকে জানান, মিলনায়তনের ভাড়া পরিশোধ না করায় এই কাজ করেছে ইনস্টিটিউশন কর্তৃপক্ষ। আর সব জানতে পেরে ওবায়দুল কাদের ইনস্টিটিউশনের নেতাদের সঙ্গে কথা বলে মিলনায়তন খুলে দেওয়ার ব্যবস্থা করেন।

 

মন্ত্রিসভার বৈঠকে প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘তালাবন্ধের ঘটনাটি জানার পর আমি আমাদের দলের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদেরকে জানাই। এটা কেন হচ্ছে, এতে সরকারের সমালোচনা হবে। বিষয়টি তাকে দেখতে বলি। ওবায়দুল কাদের ইঞ্জিনিয়ার্স ইনস্টিটিউশনের সভাপতি সঙ্গে কথা বলেন। কেন মিলনায়তনের দরজা বন্ধ রাখা হয়েছে, এটা সরকারের সমালোচনা হচ্ছে এ বিষয়গুলো ওবায়দুল কাদের তাদের জানায়।’ ‘তারা তখন ওবায়দুল কাদেরকে জানায়, ভাড়ার টাকা পরিশোধ করেনি বলে দরজা বন্ধ রাখা হয়েছে। ওবায়দুল কাদের তখন তাদের বলেছে, ভাড়ার টাকা পরিশোধ হয়েছে কি হয়নি সেটা পরের বিষয়। তাদের যেহেতু ভাড়া দেওয়া হয়েছে তাড়াতাড়ি দরজা খুলে দিন। এটা নিয়ে সরকারের সমালোচনা হবে। এরপর দরজা খুলে দেয় ইঞ্জিনিয়ার্স ইনস্টিটিউশন।’

 

আজ গণভবনে প্রধানমন্ত্রীর সংবর্ধনা পাচ্ছে অনূর্ধ্ব-১৫

 

মহিলা জাতীয় ফুটবল দল

 

আজ বৃহস্পতিবার গণভবনে প্রধানমন্ত্রীর সংবর্ধনা পাচ্ছে অনূর্ধ্ব-১৫ মহিলা জাতীয় ফুটবল দল। ক্রীড়াপ্রেমী প্রধানমন্ত্রী আজ বৃহস্পতিবার বিকাল সাড়ে ৩টায় মেয়েদের অনূর্ধ্ব-১৫ সাফ ফুটবলে চ্যাম্পিয়ন বাংলাদেশ দলকে আমন্ত্রণ জানিয়েছেন গণভবনে। জানা গেছে, সংবর্ধনার পাশাপাশি দলের প্রত্যেক সদস্যের হাতে তুলে দেওয়া হবে এক লাখ টাকা। প্রসঙ্গত, গত ২৪ ডিসেম্বর ঢাকার কমলাপুরের বীরশ্রেষ্ঠ সিপাহি মোস্তফা কামাল স্টেডিয়ামে অনূর্ধ্ব-১৫ সাফ টুর্নামেন্টের ফাইনালে ভারতকে ১-০ গোলে হারিয়ে শিরোপা জেতে বাংলাদেশ।

 

প্রধানমন্ত্রী আজ দেশের প্রথম সিক্সলেন

 

ফ্লাইওভার উদ্বোধন করবেন

 

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আজ বৃহস্পতিবার ফেনী শহরের মহিপালে দেশের প্রথম ও একমাত্র সিক্স লেনের ফ্লাইওভার উদ্বোধন করবেন। দুপুর ১২টায় গণভবন থেকে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে এই ফ্লাইওভার উদ্বোধন করবেন তিনি।

 

মন্ত্রিসভায় জাতীয় মানসিক স্বাস্থ্য

 

আইনের খসড়া অনুমোদন

 

এদিকে মন্ত্রিসভা অপরাধ সংঘটনে কোন মানসিক রোগীকে প্ররোচিত করার দায়ে কঠোর শাস্তি প্রদানের পরামর্শ দিয়ে জাতীয় মানসিক স্বাস্থ্য আইন-২০১৭’র খসড়া অনুমোদন করছে। খসড়া আইনে লাইসেন্স ছাড়া কোন মানসিক হাসপাতাল প্রতিষ্ঠা এবং পরিচালনার দায়ে কঠোর শাস্তি প্রদানের প্রস্তাব করা হয়েছে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে তাঁর কার্যালয়ে অনুষ্ঠিত মন্ত্রিসভার সাপ্তাহিক বৈঠকে এ অনুমোদন দেয়া হয়। মন্ত্রিপরিষদ সচিব মো. শফিউল আলম বৈঠক শেষে সাংবাদিকদের ব্রিফ করেন। তিনি বলেন, নতুন আইনটি ১০৫ বছরের পুরানো ‘মানসিক বিকার-আইন-১৯১২’ এর স্থলাভিষিক্ত হবে।

 

শফিউল আলম বলেন, মানসিক রোগীদের চিকিত্সায় সহযোগিতা পেতে চাইলে রোগীদের অভিভাবকদের এই কমিটির কাছে আবেদন করতে হবে। এ ধরনের আবেদন প্রাপ্তির এক মাসের মধ্যে রিভিউ কমিটিকে পদক্ষেপ নিতে হবে।

 

এদিকে সভায় বাংলাদেশ ও চেক প্রজাতন্ত্রের মধ্যে বাণিজ্য, উন্নয়ন ও অর্থনৈতিক সহযোগিতা সংক্রান্ত একটি চুক্তির খসড়াও অনুমোদন করা হয়। সভায় বাংলাদেশ ও কম্বোডিয়ার মধ্যে পর্যটন ক্ষেত্রে সহযোগিতা সংক্রান্ত একটি সমঝোতা স্মারকেরও অনুমোদন দেয়া হয়। বৈঠককালে নৌমন্ত্রী শাজাহান খান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কাছে যুক্তরাজ্য ভিত্তিক আন্তর্জাতিক রেটিং সংস্থা লয়েড-এর একটি সনদ হস্তান্তর করেন। মন্ত্রিসভার বৈঠকে মত্স্য ও প্রাণিসম্পদ মন্ত্রী এবং বিশিষ্ট মুক্তিযোদ্ধা ছায়েদুল হক, চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশনের মেয়র ও চট্টগ্রাম জেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি এ বি এম মহিউদ্দিন চৌধুরী, গাইবান্ধা-১ আসন থেকে নির্বাচিত সংসদ সদস্য গোলাম মোস্তফা আহমেদের মৃত্যুতে শোক ও দুঃখ প্রকাশ করে তিনটি পৃথক প্রস্তাব গ্রহণ করা হয়।