আজ  শনিবার, ২৪ অক্টোবর, ২০২০

গণভবনের নাম ভাঙ্গিয়ে প্রতারণা চাঁদপুরে সন্ত্রাসী হামলায় আহত যুবক জীবন-মৃত্যুর সন্ধিক্ষণে

 

চাঁদপুর শহরের টেকনিকেল বন বিভাগ সড়কে সন্ত্রাসী হামলায় ফরহাদ পাটোয়ারী নামে এক যুবককে কুপিয়ে জখম করা হয়েছে।
গুরুতর আহত অবস্থায় তাকে স্থানীয়রা উদ্ধার করে চাঁদপুর সরকারি জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে চিকিৎসা করানো হয়।
হামলায় আহত ফরহাদ পাটোয়ারী অবস্থা আশঙ্কাজনক হওয়ায় তাকে ঢাকা মেডিকেল হাসপাতালে রেফার করা হয়েছে। সে বর্তমানে জীবন-মৃত্যুর সন্ধিক্ষণে রয়েছে।
সন্ত্রাসী হামলার ঘটনায় আহত ফরহাদ পাটোয়ারীর বড় ভাই মোঃ খোরশেদ আলম বাদী হয়ে খলিশাডলি গ্রামের বনবিভাগ রোডের নারীলোভী মোঃ শাহ আলম,রানা পাটোয়ারী ও নাঈম পাটোয়ারীকে আসামি করে চাঁদপুর মডেল থানায় একটি মামলা দায়ের করা হয়। মামলার প্রেক্ষিতে মডেল থানার এসআই হাবিব সঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে সোমবার রাতে আসামিদের বাড়িতে গিয়ে হানা দেয়। এসময় পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে তারা এলাকার ছেড়ে গা-ঢাকা দেন।
আহতের বড় ভাই খোরশেদ আলম জানান, এলাকা চিহ্নিত চাঁদাবাজ অপরাধ জগতের হোতা শাহ আলম,রানা পাটোয়ারী ও নাঈম পাটোয়ারী এলাকায় অনেক অপকর্ম চালিয়ে যাচ্ছে। শাহ আলম দুটি বিয়ে করেছে তার চারিত্রিক সমস্যা রয়েছে। তারা প্রায় সময় আমার ভাইয়ের কাছে চাঁদা দাবি করে।
এই কারণে সোমবার সন্ধ্যায় বন বিভাগ রোডে ভাই ফরহাদ পাটোয়ারী ও শাহ আলম পাটোয়ারী সাথে বাক-বিতণ্ডা সৃষ্টি হয়। এসময় শাহ আলম ও তার ছেলে রানা সহ দুজন এসে দেশীয় অস্ত্র দিয়ে কুপিয় দুজন এসে কুপাতে থাকে।
এসময় ফরহাদ পাটোয়ারী মাথায় কুপিয়ে জখম করে ও তার একটি চোখে গুরুতর আঘাত প্রাপ্ত হয়।
রক্তাক্ত অবস্থায় তাকে চাঁদপুর সরকারি হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।
এই ঘটনায় পুলিশ ঘটনাস্থলে যাওয়ার পর উল্টো আসামিরা ক্ষিপ্ত হয়ে আবারো হামলা করার পরিকল্পনা করছে ও হত্যার হুমকি দিচ্ছে বলে অভিযোগ করেন ভুক্তভোগী পরিবার।
এ বিষয়ে অভিযুক্ত শাহ আলম পাটোয়ারী জানান, দুজনের মধ্যে বাকবিতণ্ডা হলে খবর পেয়ে দুই ছেলে এসে লাইক দিয়ে ফরহাদ পাটোয়ারীকে আঘাত করেন। বিষয়টি সমাধানের লক্ষ্যে আহতর পরিবারের সাথে যোগাযোগ চলছে।
এ বিষয়ে পত্রিকায় সংবাদ প্রকাশ না করার জন্য তিনি সাংবাদিকদের অনুরোধ জানান।
এদিকে শাহ আলমের ছেলে রানা পাটোয়ারী ০১৬৪১৮২৫১৯৭ নাম্বারে ফোন করে নিজেকে গণভবনের সচিব পরিচয় দিয়ে এই প্রতিবেদককে হুমকি দেয়।এই ঘটনা সংবাদ প্রকাশ না করা ও এ নিয়ে বাড়াবাড়ি না করার জন্য রানা তাঁর সহযোগীরা সাংবাদিক ও পুলিশকে ফোন করে গণভবনে নাম ভাঙ্গিয়ে প্রতারণা করে হুমকি প্রদান করেন। তারা এভাবেই সাধারণ মানুষদের একই কায়দায় বিভিন্ন মন্ত্রণালয়ের সচিবের নাম ভাঙ্গিয়ে ফোন করে ভয়-ভীতি প্রদর্শন করে ও টাকা পয়সা হাতিয়ে নেওয়ার গুরুতর অভিযোগ রয়েছে তাদের বিরুদ্ধে।

শাহরিয়ার খান কৌশিক, মো,০১৭১৩৬৮৮৯২০