আজ  বুধবার, ১৭ জানুয়ারি, ২০১৮

চাঁদপুরের মতলব সহ সারাদেশে চলছে প্রতিমা বিসর্জন

Sadarghat-120170930174530

আইএনএন২৪বিডি.কম: বৃষ্টি উপেক্ষা করে ব্যাপক উৎসাহ আর উদ্দীপনার মধ্য দিয়ে চাঁদপুরের মতলব সহ সারাদেশে চলছে প্রতিমা বিসর্জন রাজধানীর সদরঘাটের ওয়াইজঘাটে শুরু হয়েছে প্রতিমা বিসর্জন। এরই মাধ্যমে শেষ হতে যাচ্ছে হিন্দু ধর্মাবলম্বীদের সবচেয়ে বড় ধর্মীয় উৎসব শারদীয় দুর্গাপূজা।

দশমীর দিন শনিবার (৩০ সেপ্টেম্বর) প্রতিমা বিসর্জন উপলক্ষে বিকেল ৪টা থেকেই ওয়াইজঘাটের বিনা স্মৃতি স্নানঘাটে ঢাকার বিভিন্ন পূজামণ্ডপ থেকে ট্রাকে করে প্রতিমাসহ মানুষের মিছিল উপস্থিত হতে থাকে। শুরু হয় প্রতিমা বিসর্জনের নানান উৎসব। নাচে-গানে মাতিয়ে রাখার পাশাপাশি বিষাদের সুর বেজে উঠেছে কোথাও কোথাও। ঢাকের তালের পাশাপাশি ‘দুর্গা মা-ই কি, জয়’ স্লোগানে ঘাটের দিকে এগিয়ে যান তারা। ঢাকেশ্বরী মন্দিরের পক্ষ থেকে দেওয়া সিরিয়াল নম্বর অনুসারে প্রতিমা বিসর্জনের পালা শুরু হয়।

সর্বপ্রথম ২৩০ লালমোহন স্ট্রিট থেকে আগত পারিবারিক পূজার প্রতিমা ও বৃহৎ আকারে ধানমন্ডি সার্বজনীন পূজা কমিটি থেকে প্রতিমা বিসর্জনের কাজ সম্পন্ন হয়।

এদিকে ওয়াইজঘাটে প্রতিমা বিসর্জন নিয়ন্ত্রণের দায়িত্বে থাকা মো. বোরহান বলেন, ঘাটে কেন্দ্রীয় পূজা কমিটির অ্যাডভোকেট পিন্টুর নেতৃত্বে সিরিয়াল টোকেন দেওয়া শুরু হয়েছে। টোকেন নিয়ে ঘাটে আমাদের কাছে এসে তা দেখিয়ে নৌকায় প্রতিমা উঠিয়ে বিসর্জনের কাজ সম্পন্ন হচ্ছে।

তিনি আরও বলেন, গতবছর ৭৬টি প্রতিমা বিসর্জনের কাজ এখানে সম্পন্ন হয়েছিল। আমরা আশা করছি এবার ১২৮টি প্রতিমা বিসর্জনের কাজ সম্পন্ন হওয়ার কথা রয়েছে। প্রশাসনের নির্দেশনা অনুসারে রাত ৮টার মধ্যেই প্রতিমা বিসর্জনের কাজ শেষ হবে আশা করছি। আর আমাদের ৫টা ট্রলারের মাধ্যমে প্রতিমা বিসর্জনের কাজ চলছে।

নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে ওয়াইজঘাটে বিপুলসংখ্যক পুলিশ, র‍্যাব ও নৌপুলিশ বাহিনীর সদস্যের উপস্থিতি ও আলাদা আলাদা কন্ট্রোলরুম লক্ষ্য করা গেছে। বিসর্জন দেখতে ঘাটে ধর্ম মত নির্বিশেষে হাজারো মানুষ হাজির হন। এছাড়া নদীতে পুলিশ, ফায়ার সার্ভিস ও র‍্যাবের টহলরত স্পিডবোর্ড ও ট্রলার ডুবুরি দলকেও লক্ষ্য করা গেছে। এছাড়া পুরান ঢাকার পোস্তগোলার শ্মশানঘাটে ও লালকুঠির ঘাটে আরও প্রতিমা বিসর্জনের কাজ সম্পন্ন হচ্ছে।