আজ  শুক্রবার, ৩ জুলাই, ২০২০

চাঁদপুরে হরিনায় ফেরি পারাপারের অপেক্ষায় ২ কিলোমিটার জুড়ে যানজট দূর্ভোগে চালকরা

 

ঘন কুয়াশার কারণে রাতে চাঁদপুর-শরিয়তপুর নৌ-রুটে ফেরি চলাচল বন্ধ ছিল। এতে করে গত ৩ দিন যাবত হরিণা ও নরসিংহপুর ঘাট এলাকায় নদী পারের অপেক্ষায় সড়কে যানবাহনের দীর্ঘ জট লেগে যায়। ফলে চাঁদপুর সদর উপজেলা ১৩ নং হানারচর ইউনিয়ন হরিণা-চান্দ্রা সড়কে তীব্র যানজটের সৃষ্টি হয়। এ কারণে পথে আটকা পড়ে সীমাহীন দুর্ভোগ পোহায় যানবাহনের চালক ও যাত্রীরা।
বেশ কয়েকজন চালক অভিযোগ করে বলেন, চাঁদপুরে হরিনা শরীয়তপুর ফেরি ঘাটে পাঁচটি ফেরি ছিল বর্তমানে তিনটি ফেরি চলছে বাকি দুটি বিকল অবস্থায় আছে। ফেরি সময়মত চলাচল না করার কারণে ও রাতে ফেরি চলাচল না করায় এই যানজটের সৃষ্টি হয়। প্রায় দুই কিলোমিটার জুড়ে রাস্তার পাশে গাড়ি থাকায় চলাচলের ব্যাপক সমস্যার সৃষ্টি হয়।
ফেরিঘাটে অনেক সমস্যা রয়েছে টয়লেট ব্যবস্থা করুন থাকার কারণে চালকদের সমস্যা হচ্ছে।
এছাড়া সিরিয়ালের নামে অতিরিক্ত টাকা আদায় করছেন বলে অভিযোগ করেছে অনেকে।
বিআইডব্লিউটিসি হরিণা ঘাট ম্যানেজার ফয়সাল চৌধুরী জানান, রোববার দিবাগত রাত দশটার পর থেকে মেঘনা নদী এলাকা ঘনকুয়াশায় ঢেকে যায়। কুয়াশার কারণে দুর্ঘটনা এড়াতে ফেরি চলাচল বন্ধ করে দেয় কর্তৃপক্ষ। ফলে ফেরিঘাটের দুই পাড়ে প্রায় তিন শতাধিক যানবাহন আটকা পড়ে।
গতকাল সকাল ৭টার দিকে কুয়াশা কেটে গেলে ফের ফেরি চলাচল শুরু হয়। কুয়াশার সমস্যা দেখা না দিলে পরিস্থিতি স্বাভাবিক হয়ে আসবে বলে জানান ওই কর্মকর্তা।