আজ  শুক্রবার, ২৪ নভেম্বর, ২০১৭

মতলব উত্তরে সাহাবাজকান্দিতে অতর্কিত হামলায় নারীসহ আহত ২

M3

মতলব প্রতিনিধি ॥
চাঁদপুরের মতলব উত্তর উপজেলার সাহাবাজকান্দি গ্রামে অতর্কিত হামলায় পিতা-মেয়ে আহত হয়েছেন। গত ১৬ জুলাই বিকাল সাড়ে ৪টায় এ ঘটনাটি ঘটে। এ ঘটনায় মতলব উত্তর থানায় অভিযোগ দায়ের করেছেন খাদিজা বেগম।
অভিযোগ সূত্রে জানা গেছে, উপজেলার সাহাবাজকান্দি গ্রামের হুমায়ুন কবির ওরফে মিঠু মাস্টারের সাথে প্রতিবেশী রফিকুল ইসলামের সাথে বিগত দিন ধরে জমি সংক্রান্ত বিরোধ চলছে। এ ঘটনাকে পুঁজি করে গত ১৬ জুলাই রাস্তা দিয়ে যাওয়ার পথে তৃতীয় পক্ষ একই গ্রামের সাবেক ওয়ার্ড সদস্য নিজাম উদ্দিন (৫৫) ও তার ছেলেরা মিঠু মাস্টারের স্ত্রী খাদিজা বেগমের উপর অতর্কিত হামলা করে। খাদিজাকে চুলে ধরে অনেক মারধর করলে তিনি গুরুতর আহত হয়ে পড়েন। এমনকি তাকে শ্লীলতাহানি করেছে নিজাম উদ্দিনের ছেলেরা। এসময় তার পিতা মহিউদ্দিন শিকদার (৭৭) খাদিজাকে উদ্ধার করতে গেলে তাকেও মাথায় গুরুতর জখম করলে তিনি আহত হয়ে পড়েন। এলাকাবাসী আহতদের উদ্ধার করে মতলব দক্ষিণ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যায়। এ ঘটনাকে কেন্দ্র করে ওবায়দুল হক পাটোয়ারীর ছেলে রফিকুল ইসলাম (৪৫), মৃত জলিল মোল্লার ছেলে সাবেক মেম্বার নিজাম উদ্দিন (৫৫), তার ছেলে সোহেল (২৮), সবুজ (২৫) ও ইয়াছিন ছৈয়ালের ছেলে রুবেল (২০)কে আসামী করে থানায় অভিযোগ দায়ের করেন খাদিজা।
খাদিজা বেগম বলেন, যাদের সাথে আমাদের জমি সংক্রান্ত বিরোধ আছে তাদের পক্ষ নিয়ে এলাকার সন্ত্রাসী নিজাম উদ্দিন ও তার ছেলেরা আমার উপর সন্ত্রাসী হামলা করেছে। অথচ নিজাম উদ্দিনের সাথে আমাদের কোন বিরোধ নেই। তিনি শালিশ বৈঠকে উপস্থিত ছিলেন মাত্র। নিজাম উদ্দিন গংরা বহুদিন যাবৎ এলাকায় এ ধরনের সন্ত্রাসী কর্মকান্ড চালিয়ে আসছে। ভয়ে কেউ তাদের কিছু বলেনা। মানুষের জমি দখল, মানুষকে অযথা হয়রানি, মারধরসহ বিভিন্ন অসৎ ও সন্ত্রাসী কর্মকান্ডে লিপ্ত তারা। নিজাম উদ্দিনের বিরুদ্ধে মতলব উত্তর থানায় ও ইউপি চেয়ারম্যান অফিসে এধরনের একাধিক অভিযোগ রয়েছে বলেও জানান খাদিজা।
এ ব্যাপারে নিজাম উদ্দিনের সাথে যোগাযোগ করার চেষ্টা করলে তাকে বাড়িতে পাওয়া যায়নি।