আজ  শুক্রবার, ১৮ সেপ্টেম্বর, ২০২০

যেভাবে করোনায় আক্রান্ত হলেন তিন বাংলাদেশি

 

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট |
ঢাকা: শনাক্ত হওয়ার আড়াই মাসের ব্যবধানে বিশ্বের ১০৩ দেশ ও অঞ্চলে ছড়িয়ে পড়া করোনা ভাইরাস অবশেষ বাংলাদেশে তার উপস্থিতি জানান দিয়েছে। ভাইরাসটি এতো দ্রুত ছড়িয়ে পড়েছে যে, এর প্রতিষেধক তৈরির আগেই বিশ্বব্যাপী লক্ষাধিক মানুষ আক্রান্ত হয়েছেন। মারাও গেছেন তিন হাজার ছয়শ’র বেশি মানুষ।
গত ফেব্রুয়ারি মাসের শুরুর দিকে পার্শ্ববর্তী দেশ ভারতের কেরালায় তিনজন করোনা রোগী শনাক্ত হয়। দীর্ঘ সময় পর গত সপ্তাহ থেকে দেশটিতে নতুন করে কোভিড-১৯ রোগীর সংখ্যা বাড়তে থাকে। সবশেষ যা বেড়ে ৪০ জনে দাঁড়িয়েছে। আক্রান্তদের সম্প্রতি ইতালি ভ্রমণ করা ব্যক্তিও রয়েছেন।
এদিকে রোববার (০৮ মার্চ) বাংলাদেশে প্রথমবার তিনজন করোনা ভাইরাস আক্রান্ত রোগী শনাক্ত হয়েছে বলে নিশ্চিত করেছে রোগতত্ত্ব, রোগনিয়ন্ত্রণ ও গবেষণা ইনস্টিটিউট (আইইডিসিআর)।
রাজধানীর মহাখালীর আইইডিসিআর-এর কার্যালয়ে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে প্রতিষ্ঠানটির পরিচালক অধ্যাপক ডা. মীরজাদী সেব্রিনা ফ্লোরা এ তথ্য জানিয়ে বলেন, যারা আক্রান্ত হয়েছেন তাদের দুইজন ইতালি থেকে সম্প্রতি বাংলাদেশে এসেছেন। দেশে এলে পরীক্ষা-নিরীক্ষার পর তাদের কোভিড-১৯ এ আক্রান্ত হওয়ার বিষয়টি শনাক্ত করা হয়। আক্রান্ত একজনের মাধ্যমে পরবর্তীতে একই পরিবারের আরও এক সদস্য আক্রান্ত হয়েছেন।
‘তিনজনের মধ্যে একজন নারী, দুইজন পুরুষ। তাদের বয়স ২০ থেকে ৩৫ বছরের মধ্যে,’ যোগ করেন তিনি।
প্রাণঘাতী করোনা ভাইরাসে শেষ খবর পর্যন্ত তিন হাজার ছয়শ ৫২ জন মারা গেছেন। আক্রান্তের সংখ্যা এক লাখ সাড়ে সাত হাজারের কাছাকাছি। আর সুস্থ হয়েছেন ৬১ হাজারের মতো মানুষ।