আজ  বুধবার, ১৭ জানুয়ারি, ২০১৮

সাগরদাঁড়িতে কালে কালে হয়ে উঠবে বিশ্ব বাঙ্গালীর মধুমেলা : সেতুমন্ত্রী

Keshabpur 26-01-17

কেশবপুর (যশোর) প্রতিনিধি :
বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, সুকুটহীন সম্রাট মাইকেল মধুসূদন দত্তের জন্মবার্ষিকীতে আসছি। মধুমেলার সাথে আওয়ামী লীগকে মিলাবেন না। এসব অনুষ্ঠান বিষয় ভিত্তিক হওয়া উচিত। মধুসূদনের কারণে আজ যেখানে বাঙ্গালী আছে সেখানে আছে বাংলা ভাষা। কপোতাক্ষ নদ মধুসূদনকে মহাকবি বানিয়েছে। বাংলাকে তিনি করেছেনে সমৃদ্ধ। সাগরদাঁড়িতে কালে কালে হয়ে উঠবে বিশ্ব বাঙ্গালীর মধুমেলা।
কেশবপুরের সাগরদাঁড়িতে সপ্তাহ ব্যাপী মধুমেলার ৬ষ্ঠ দিন বৃহস্পতিবার দুপুরে মধুমঞ্চে মহাকবি মধুসূদন পদক প্রদান অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তবে তিনি এ কথা বলেন।
মধুমেলা উদযাপন কমিটির সভাপতি যশোরের জেলা প্রশাসক ড. মোঃ হুমায়ুন কবিরের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য রাখেন জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী ইসমাত আরা সাদেক এমপি। বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী ড. বিরেন শিকদার এমপি, যশোর জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি সহিদুল ইসলাম মিলন।

অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন যশোর জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান সাবেক এমপি শাহ হাদিউজ্জামান, যশোর ২ আসনের সংসদ সদস্য এ্যাড. মনিরুল ইসলাম, যশোর ৩ আসনের সংসদ সদস্য কাজী নাবিল আহম্মেদ, যশোর ৫ আসনের সংসদ সদস্য স্বপন ভট্টাচার্য চাঁদ, কেশবপুর উপজেলা চেয়ারম্যান এইচ এম আমির হোসেন, চৌগাছা উপজেলা চেয়ারম্যান হাবিবুর রহমান, শার্শা উপজেলা চেয়ারম্যান সিরাজুল ইসলাম মঞ্জু, মণিরামপুর উপজেলা চেয়ারম্যান আমজাদ হোসেন লাভলু, কেশবপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি এস এম রুহুল আমিন, জেলা আওয়ামী লীগের মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক সম্পাদক মুক্তিযোদ্ধা আলহাজ্ব কাজী রফিকুল ইসলাম, কেশবপুর পৌরসভার মেয়র রফিকুল ইসলাম মোড়ল, ভাইস চেয়ারম্যান আব্দুল লতিফ রানা, ভাইস চেয়ারম্যান নাসিমা সাদেক, সাগরদাঁড়ি ইউপি চেয়ারম্যান কাজী মুস্তাফিজুল ইসলাম মুক্তো প্রমুখ।

অনুষ্ঠানে মহাকবি মধুসূদন পদক-২০১৭ প্রদান করা হয় কবি নির্মলেন্দু গুণ ও কথাসাহিত্যিক ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক ড. সৈয়দ মনজুরুল ইসলাম। তবে অধ্যাপক ড. সৈয়দ মনজুরুল ইসলামের পক্ষে কবি মারুফুল ইসলাম পদক গ্রহণ করেন।