আজ  রবিবার, ২৯ নভেম্বর, ২০২০

বিষ্ণুপুরে জেলেদের চাল বিতরণ নিয়ে ইউপি চেয়ারম্যান সামিম খানের বিবৃতি

 

চাঁদপুর সদর উপজেলার ১ নং বিষ্ণুপুর ইউনিয়নে জেলেদের জাল বিতরণ নিয়ে প্রকাশিত সংবাদের প্রেক্ষিতে বিবৃতি দিয়েছেন ইউপি চেয়ারম্যান মোঃ শামীম খান।
বিষ্ণুপুর ইউনিয়নে জেলেদের ১০ কেজি করে চাল বিতরণ করা নিয়ে ইলেকট্রনিক মিডিয়া ও অনলাইন পত্রিকায় যে সংবাদ প্রকাশ করা হয় তার কারণ ও ব্যাখ্যা দিয়ে শামিম খান জানান, মা ইলিশ রক্ষায় ২২ দিন পদ্মা মেঘনা নদীতে সকল ধরনের মাছ ধরা ও ক্রয়-বিক্রয় পরিবহন নিষেধ করেছেন সরকার। সেই আলোকে জেলে পরিবারদের ২০ কেজি করে চাল দেওয়ার নির্দেশ প্রদান করা হয়। বিষ্ণুপুর ইউনিয়নে এর পূর্বে ১১৮২ জেলে পরিবারের মাঝে চাল বিতরণ করা হয়েছে। কিন্তু এ বছর ১১৮২ জেলে পরিবারদের ২০ কেজি করে সমপরিমাণ চাল না দিয়ে সরকার ৯২৭জেলে পরিবারদের চাল বরাদ্দ দিয়েছেন।
এই কারনে সকল জেলেদের কথা চিন্তা করে বরাদ্দকৃত চাল সমপরিমাণ হারে এগারোশো জেলে পরিবারের মাঝে বন্টন করা হওয়ায় জেলেরা চাল কম পেয়েছে।
সেজন্য তারা সাংবাদিকদের কাছে তাদের ক্ষোভের কথা প্রকাশ করায় এই সংবাদটি মিডিয়াতে প্রচার করা হয়। ওই সময় ইউনিয়ন পরিষদের না থাকার কারণে জেলেরা এমনটি করেছেন। জেলেদের জাল কোন ধরনের চুরি করা হয়নি তাদের চাল তাদেরকে দেওয়া হয়েছে‌। মূলত কাউকে বঞ্চিত করা হয়নি। তাই প্রকাশিত সংবাদের প্রতিবাদ জানাচ্ছি।